• মঙ্গলবার, ০৬ ডিসেম্বর ২০২২, ০৫:৪৪ পূর্বাহ্ন

মীর মশাররফ হোসেনের ১৭৫তম জন্মবার্ষিকী কাল : বালিয়াকান্দি সমাধিতে আলোচনা সভা ও সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান

প্রতিবেদকঃ / ৭৫ পোস্ট সময়
সর্বশেষ আপডেট শনিবার, ১২ নভেম্বর, ২০২২

সোহেল রানা : আধুনিক বাংলা গদ্য সাহিত্যের প্রথম মুসলিম রূপকার, ঊনবিংশ শতাব্দীর সর্বশ্রেষ্ঠ সাহিত্যিক, কালজ্বয়ী উপন্যাস বিষাদসিন্ধুর রচয়িতা মীর মশাররফ হোসেনের ১৭৫তম জন্মবার্ষিকী ১৩ নভেম্বর। এ সাহিত্যিক ১৮৪৭ সালের ১৩ নভেম্বর কুষ্টিয়া লাহিনীপাড়া জন্মগ্রহণ করেন। তার বাবা মীর মোয়াজ্জেম হোসেন ও মাতা দৌলতন নেছা। ১৯১১ সালের ১৯ ডিসেম্বর রাজবাড়ী জেলার বালিয়াকান্দি উপজেলার নবাবপুর ইউনিয়নের পদমদী গ্রামে মৃত্যুবরণ করেন। সেখানেই তাকে সমাহিত করা হয়। তার স্মৃতি রক্ষার্থে সাংস্কৃতি মন্ত্রণালয়ের অর্থায়নে পদমদীতে মীর মশাররফ হোসেন স্মৃতি কেন্দ্র নির্মাণ করা হয়।
মীরের জন্মবার্ষিকী উপলক্ষে ১৩ নভেম্বর সকাল ১১ টায় স্মৃতিকেন্দ্রে আলোচনা সভা ও সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের আয়োজন করেছে বাংলা একাডেমি। ইতিমধ্যে বাংলা একাডেমির মহাপরিচালক মুহম্মদ নূরুল হুদা আমন্ত্রণ জানিয়েছেন। দিনব্যাপী এ অনুষ্ঠানে আলোচনা সভায় স্বাগত ভাষণ দেবেন বাংলা একাডেমির পরিচালক ডা. কে.এম মুজাহিদুল ইসলাম। প্রাবন্ধিক কুষ্টিয়া ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়ের অধ্যাপক ড. আবুল আহসান চৌধুরী। প্রধান বক্তা থাকবেন বাংলা একাডেমির মহাপরিচালক কবি মুহম্মদ নূরুল হুদা। বিশেষ অতিথি থাকবেন বাংলা একাডেমির সচিব এ.এইচ.এম. লোকমান, বালিয়াকান্দি উপজেলা চেয়ারম্যান বীরমুক্তিযোদ্ধা মোঃ আবুল কালাম আজাদ। প্রধান অতিথি থাকবেন, রাজবাড়ী-২ আসনের সংসদ সদস্য ও জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি বীরমুক্তিযোদ্ধা মোঃ জিল্লুল হাকিম। সভাপতিত্ব করবেন, রাজবাড়ী জেলা প্রশাসক আবু কায়সার খান। ধন্যবাদ জ্ঞাপন করবেন, বালিয়াকান্দি উপজেলা নির্বাহী অফিসার আম্বিয়া সুলতানা। আলোচনা সভা শেষে স্থানীয় শিল্পীদের পরিবেশনায় সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান অনুষ্ঠিত হবে। এছাড়াও দিবসটি উপলক্ষে বাংলা একাডেমি, উপজেলা প্রশাসন, মীর মশাররফ হোসেন সাহিত্য পরিষদ, মীর মশাররফ হোসেন কলেজসহ স্থানীয় বিভিন্ন সাহিত্য ও সামাজিক সংগঠন পদমদীতে তার সমাধিতে পুষ্পস্তবক অর্পণ কর্মসূচি হাতে নিয়েছেন।
মীর মশাররফ হোসেন লিখিত গ্রন্থসমূহ: রত্নবতী (উপন্যাস) ১৮৭৩, বসন্তকুমারী (নাটক) ১৮৭৩, জমিদার দর্পণ (নাটক) ১৮৬৯, গড়াই ব্রীজ বা গৌড়ী সেতু (কবিতাগ্রন্থ) ১৮৭৩, এর উপায় কি (প্রহসন) ১৮৭৬, বিসাদসিন্ধু ঐতিহাসিক (উপন্যাস) ১৮৮৫-৯১, সঙ্গীতলহরী ১৮৮৭, গো-জীবন (প্রবন্ধ) ১৮৮৯, উদাসীন পথিকের মনের কথা (জীবনী) ১৮৯৯, গাজী মিয়ার বস্তানী (রম্যরচনা) ১৮৯৯, মৌলদ শরীফ পদ্যে পদ্যে লিখিত (ধর্মীয় গ্রন্থ) ১৯০০, মুসলমানের বাঙ্গালা শিক্ষা ছাত্রপাঠ্য (প্রথম ভাগ) ১৯০৩ এবং (দ্বিতীয় ভাগ) ১৯০৮, বিবি খোদেজার বিবাহ (কাব্য) ১৯০৫, হযরত ওমরের ধর্মজীবন লাভ (কাব্য) ১৯০৫, হযরত বেলালের জীবনী প্রবন্ধ) ১৯০৫, হযরত আমীর হামজার ধর্মজীবন লাভ (কাব্য) ১৯০৫, মদিনার গৌরব (কাব্য) ১৯০৫, মদিনার গৌরব (কাব্য) ১৯০৬, মোশ্লেম বীরত্ব (কাব্য) ১৯০৭, এসলামের জয় (প্রবন্ধগ্রন্থ) ১৯০৮, আমার জীবনী (আত্মজীবনী) ১৯০৮-১০, বাজীমাত (কাব্য) ১৯০৮, হযরত ইউসোফ (প্রবন্ধ গ্রন্থ) ১৯০৮, খোতবা বা ঈদুল ফিতর (কাব্য) ১৯০৮ ও বিবি কুলসুম (জীবনী) ১৯১০।
স্থানীয় বাসিন্ধা খোন্দকার বাশারুল আলম বাপ্পু, এম.এ কুদ্দুস বলেন, মীরের জন্ম ও মৃত্যু বার্ষিকীতে শুধু এখানে দু’টি সামান্য আয়োজন হয়। পর্যটন কেন্দ্র ঘোষণা ও মীরের নামে সাংস্কৃতিক বিশ্ববিদ্যালয়ের দাবী জানিয়ে আসলেও তা কার্যকর হয়নি। দুর-দুরান্ত থেকে ভ্রমন পিয়াসুরা আসলেও তাদের থাকা খাওয়ার কোন সু-ব্যবস্থা নেই। সরকারী ভাবে এখানে বাসস্থানের ব্যবস্থা থাকলে দর্শনার্থীদের দুর্ভোগ পোহাতে হয় না। আমরা সরকারের নিকট এর ব্যবস্থা গ্রহণের দাবী জানাই।
বালিয়াকান্দি উপজেলা নির্বাহী অফিসার আম্বিয়া সুলতানা বলেন, মীরের জন্মবার্ষিকী উপলক্ষে আলোচনা সভা, সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান সহ বিভিন্ন আয়োজন করা হয়েছে।

 


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ ক্যাটাগরিতে আরো সংবাদ

সম্পাদক ও প্রকাশকঃ
খান মোহাম্মদ জহুরুল হক

সম্পাদকীয় কার্যালয়ঃ
রাজবাড়ী প্রেসক্লাব ভবন (নীচ তলা),
কক্ষ নং-৩, রাজবাড়ী-৭৭০০।

Contact us: editor@dailyrajbarikantha.com

প্রকাশনাঃ
সম্পাদক কর্তৃক বি এস প্রিন্টিং প্রেস, ৫২/২ টয়নবী সার্কুলার রোড, ঢাকা-১২০৩ থেকে মুদ্রিত এবং দক্ষিণ ভবাণীপুর, রাজবাড়ী থেকে প্রকাশিত।

মোবাইল- ০১৭১১১৫৪৩৯৬,
বার্তা বিভাগ- ০১৭৫২০৪০৭২০,
বিজ্ঞাপন বিভাগ- ০১৯৭১১৫৪৩৯৬

error: Sorry buddy! You can\'t copy our content :) Content is protected !!